নাসিরের বোলিং নৈপুণ্যে জয় পেল সিলেট

ঢাকা, ৩ ডিসেম্বর , (ডেইলি টাইমস ২৪):

অধিনায়ক নাসির হোসেনের বিধ্বংসী ঘূর্ণিতে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) ৩৭তম ম্যাচে চিটাগং ভাইকিংসকে ১০ উইকেটে হারিয়েছে সিলেট সিক্সার্স।

বিপিএলের ইতিহাসে এই নিয়ে তৃতীয় বার কোন দল ১০ উইকেটের ব্যবধানে ম্যাচ জিতলো। সিলেট পর্বে প্রথম তিন ম্যাচ জয়ের পর সাত ম্যাচ বাদে চতুর্থ জয়ের স্বাদ পেল নাসির-সাব্বিরের দলটি।
মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে চিটাগং ভাইকিংসকে প্রথমে ব্যাটিং-এর আমন্ত্রণ জানায় সিলেট সিক্সার্স। শুরুতেই চিটাগং ব্যাটসম্যানদের ব্যাকফুটে ঠেলে দেন নাসির। ইনিংসের প্রথম ওভারেই ২ উইকেট শিকার করেন তিনি। চিটাগং-এর অধিনায়ক নিউজিল্যান্ডের লুক রঞ্চি ৬ ও সৌম্য সরকার শূন্য রান করে নাসিরের শিকার হন।
এরপর আরও ৩ উইকেট নিয়ে টি-২০ ক্যারিয়ারে প্রথমবারের মতো ৫ উইকেট শিকার করেন নাসির। ইনিংস শেষে তার বোলিং ফিগার ছিল ৪ ওভার ৩১ রান ৫ উইকেট। টুর্নামেন্ট ইতিহাসে এই নিয়ে ১১তম বারের মতো কোন বোলার ৫ উইকেট শিকারের কৃতিত্ব দেখালেন।
নাসির ছাড়াও সিলেটের পক্ষে নাবিল সামাদ ৭ রানে ৩ ও শরিফুল্লাহ ২ উইকেট নেন। ফলে ১২ ওভারে ৬৭ রানেই গুটিয়ে যায় চিটাগং। চিটাগং-এর পক্ষে ব্যাট হাতে উইকেটরক্ষক ইরফান শুক্কুর ১৫, ইংল্যান্ডের লুইস রিসি ১২, দক্ষিণ আফ্রিকার স্তিয়ান ভ্যান জিল ১১ ও সানজামুল ইসলাম ৯ রান করেন।
জয়ের জন্য ৬৮ রানের টার্গেট দেখেশুনেই স্পর্শ করে ফেলেন সিলেটের দুই ওপেনার পাকিস্তানের মোহাম্মদ রিজওয়ান ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের আন্দ্রে ফ্লেচার। এজন্য তারা মোকাবেলা করেছেন ৬৭টি বল। ৬টি চারে ৩৩ বলে ৩৬ রান নিয়ে রিজওয়ান ও ৪টি চার ও ১টি ছক্কায় ৩৪ বলে ৩২ রান নিয়ে অপরাজিত থাকেন ফ্লেচার। ম্যাচের সেরা হয়েছেন সিলেটের নাসির।
এই জয়ে ১১ খেলায় ৯ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের পঞ্চম স্থানে উঠে এলো সিলেট। তাই শেষ চারের ওঠার দৌঁড়ে এখনো টিকে আছে নাসির-সাব্বিরের দলটি। সমান সংখ্যক ম্যাচে ৫ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের তলানিতে আছে চিটাগং ভাইকিংস।