গেইলের বক্তব্যের পেছনে ‘আর্থিক কারণ’ দেখছে বিসিবি

0
53

ঢাকা , ২৭ নভেম্বর, (ডেইলি টাইমস২৪):

বিপিএল শুরুর প্রাক্কালে বড় ঝামেলার সৃষ্টি হয়েছে ক্যারিবিয়ান দানব ক্রিস গেইলকে নিয়ে। এই বিধ্বংসী ব্যাটসম্যানের এবার চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের হয়ে খেলার কথা। কিন্তু এক সাক্ষাতকারে গেইল বলেছেন, বিপিএলের খেলার বিষয়টি নিয়ে তিনি একেবারেই অবগত নন। বছরের বাকী সময়টা তিনি বিশ্রাম করতে চান। তবে বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরী বলেন, গেইলকে যথাযথ প্রক্রিয়া মেনেই প্লেয়ার ড্রাফটে রাখা হয়েছিল। এখন গেইলের এমন বক্তব্যের ব্যখ্যা তার কাছে নেই। তবে আর্থিক ঝামেলার একটা ইঙ্গিত দিয়েছেন তিনি।

সম্প্রতি দক্ষিণ আফ্রিকার ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি আসর শেষ করেছেন গেইল। তিনি বলেছেন, ‘ওয়েস্ট ইন্ডিজ আমাকে বলেছিল ওয়ানডে সিরিজে (ভারতে) খেলতে। কিন্তু আমি খেলছি না। নির্বাচকেরা চান, তরুণদের সঙ্গে আমি খেলি। কিন্তু আপাতত এই বছর আমি ক্রিকেট থেকে বিরতি নিচ্ছি। ফ্র্যাঞ্চাইজি আসর কিংবা বিগ ব্যাশে এবার খেলছি না। জানি না, সামনে ঠিক কোন টুর্নামেন্ট আমার অপেক্ষায় আছে। এমনকি আমি এটাও জানি না, কীভাবে আমার নাম বিপিএলে পৌঁছে গেল। কিন্তু আমাকে একটি দলে নেওয়া হয়েছে। কিন্তু নিজেও জানি না সেটা কিভাবে সম্ভব হলো।’

গেইলের বক্তব্য নিয়ে আজ বুধবার বিসিবি কার্যালয়ে নিজাম উদ্দিন চৌধুরী সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমি কোনো একজন ক্রিকেটারকে নিয়ে বলব না। তবে কোনো আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার যখন আমাদের ড্রাফটে আসে, তখন আমরা একটা স্ট্যান্ডার্ড মেনে চলি। ক্রিকেটার বা তার এজেন্ট আগ্রহ দেখালে তার নাম ড্রাফটে চলে আসে। একটা প্রক্রিয়া মেনে এটি হয়, ডকুমেন্টশনের মাধ্যমে হয়ে থাকে। আমরা খতিয়ে দেখেছি যে, প্রক্রিয়া মেনেই তাকে ড্রাফটে রাখা হয়েছে। শুধু এই ক্রিকেটার নন, অন্য যারা আছেন, সবাইকে প্রক্রিয়া মেনেই রাখা হয়েছে।’

তবে এই সমস্যার কারণ ‘পারিশ্রমিক’ হতে পারে- এমন ইঙ্গিত দেন বিসিবির প্রধান নির্বাহী। বিদেশি কোটার চুক্তিতে গেইল পাবেন ১ লাখ ডলার। কিন্তু ইতিমধ্যেই শোয়েব মালিক, আন্দ্রে রাসেলরা আরও বেশি টাকায় চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন। নিজামউদ্দিন আরও বলেন, ‘আমরা অবগত নই যে কিভাবে বা কোন পরিস্থিতিতে কথাটি এসেছে। সংশ্লিষ্ট ক্রিকেটারের এজেন্টের সঙ্গে আমাদের যোগাযোগ হচ্ছে। যে দলে তার খেলার কথা, তাদের সঙ্গেও সংশ্লিষ্ট এজেন্টের যোগাযোগ হচ্ছে। আশা করছি, খুব শিগগিরই একটি সমাধান হবে। প্রক্রিয়া মেনেই তাকে ড্রাফটে রাখা হয়েছিল। হয়তো আর্থিক কোনো ব্যাপার ছিল, সেই বিষয়গুলো নিয়ে তারা কাজ করছেন। সমাধান হলেই বোঝা যাবে।’